পে ফর মি

আপনার অ্যাকাউন্টে যথেষ্ট পরিমাণ টাকা না থাকলেও আপনি আপনার জিপি নম্বরের মাধ্যমে আরেক জিপি গ্রাহককে কল করতে পারেন।

এই সার্ভিসটি উপভোগের জন্য আপনাকে *123* ডায়াল করে কাঙ্ক্ষিত নম্বরটি প্রেস করে হ্যাশ কি (#) চাপতে হবে, যেমন: *123*017xxxxxxxxx#। কাঙ্ক্ষিত নম্বরের গ্রাহক আপনার ফোনকলটির খরচ বহন করতে রাজি হলে চার্জ তাঁর ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হবে।

কাঙ্ক্ষিত নম্বরের গ্রাহক একটি রেকর্ডকৃত মেসেজ শুনতে পাবেন যেখানে তাকে জিগেস করা হবে যে পরবর্তী ফোনকলটির জন্য তিনি খরচ বহন করতে রাজি আছেন কি না। গ্রাহক রাজি হলে 1 চাপতে হবে, অন্যথায় 2 চাপতে হবে। যেকোন গ্রামীণফোন গ্রাহক এই সুবিধা উপভোগ করতে পারেন।

এই সেবাকে গ্রাহকদের জন্য আরো উপযোগী করার জন্য গ্রামীণফোন এখন “পে ফর মি” সেবার নতুন সুবিধা নিয়ে এসেছে। এখন থেকে তারা যে সব নম্বর থেকে “পে ফর মি” কল গ্রহণ করতে চান অথবা চান না সে সব নম্বরের পৃথক তালিকা তৈরি করতে পারবেন। তারা “পে ফর মি” হোয়াইট লিস্ট (কাংক্ষিত নম্বর) এবং কালো তালিকা (অনাকাংক্ষিত নম্বর) এ ফোন নম্বর যোগ করে এটা করতে পারবেন। হোয়াইট লিস্ট এর নম্বর থেকে “পে ফর মি” কল আসলে তা সরাসরি গ্রাহকের কাছে চলে যাবে আর কালো তালিকা এর নম্বর থেকে “পে ফর মি” কল করা যাবে না।

নতুন হোয়াইট লিস্ট/ কালো তালিকা এর জন্য অতিরিক্ত কোন চার্জ দিতে হবে না। নিচের কোড ব্যবহার করে সহজেই এই সুবিধা ব্যবহার করা সম্ভব:

কাংক্ষিত সেবা কোড পে ফর মি হোয়াইট লিস্ট এ নম্বর যোগ করা *123*1*017xxxxxxxxx# পে ফর মি কালো তালিকা এ নম্বর যোগ করা *123*2*017xxxxxxxxx# পে ফর মি হোয়াইট লিস্ট থেকে নম্বর বাদ দেয়া *123*3*017xxxxxxxxx# পে ফর মি কালো তালিকা থেকে নম্বর বাদ দেয়া *123*3*017xxxxxxxxx# হোয়াইট লিস্ট এর নম্বর দেখা *123*11# কালো তালিকা এর নম্বর দেখা *123*2

 

ট্যারিফ:

 

যেকোন গ্রামীণফোন নম্বরের ক্ষেত্রে সবসময় এক রেট প্রতি ১০ সেকেন্ডে ১৫ পয়সা।

শর্ত:

  • সার্ভিসটি উপভোগের জন্য কলারের অবশ্যই একটি অ্যাক্টিভ SIM থাকতে হবে।
  • একদিনে সর্বোচ্চ চারবার পে ফর মি কল করা যাবে।
  • আপনি যদি একই দিনে দু বার একই গ্রাহকের কাছ থেকে অস্বীকৃত হন, তাহলে সেদিন আর আপনি ঐ গ্রাহককে পেফরমি রিকোয়েস্ট পাঠাতে পারবেন না।

যেকোন গ্রামীণফোন প্রিপেইড ও পোস্টপেইড গ্রাহক এই সার্ভিসটি উপভোগ করতে পারবেন।

grameenphone